NAVIGATION MENU

চাঁদপুরে কোরবানির পশুর চামড়া দান করা হচ্ছে ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে


চাঁদপুরে চামড়ার ক্রেতা না থাকায় ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে দান করা হচ্ছে কোরবানির পশুর চামড়া। 

করোনা পরিস্থিতিতে চামড়া কিনতে এবারে বাসা-বাড়িতে তেমন ক্রেতা আসেনি। ফলে শেষমেশ বাধ্য হয়ে লোকজন মাদ্রাসা ও এতিমখানায় এসব চামড়া দান করে দিচ্ছেন। 

মাদ্রাসা ও এতিমখানাগুলো থেকে স্বল্প মূল্যে সেসব চামড়া কিনে নিচ্ছেন পাইকারি ব্যবসায়ীরা।

শনিবার (১ আগস্ট) সন্ধ্যায় চাঁদপুর শহরের পালবাজার চামড়ার পাইকারি আড়তে গিয়ে দেখা যায়, সংগৃহীত চামড়ার স্তূপ। সেখানেই শহরের সব চামড়া কেনার জন্য আছেন ৫ ব্যবসায়ী। তারাই আগামী ৩ দিন এলাকার সব চামড়া কিনবেন বলে জানিয়েছেন।

শহরের পুরান বাজার এলাকার একাধিক বাসিন্দার সঙ্গে আলাপ করলে তারা জানান, এ বছর খুচরা কোনো চামড়া বিক্রেতা মাঠে ছিল না। যার কারণে মানুষ পুরান বাজার জাফরাবাদ ও এমদাদিয়া মাদ্রাসায় অধিকাংশ চামড়া দান করে দিয়েছেন। মাদ্রাসার ছাত্ররা এসব চামড়া একত্রিত করে পাইকারি বাজারে বিক্রি করে দিচ্ছে। 

চাঁদপুর সদর উপজেলার মৈশাদী এলাকার এক বাসিন্দা জানান, তারা দুটি গরু কোরবানি দিয়েছেন। এক ক্রেতা এসে ১শ’ টাকা করে দু’টি চামড়ার জন্য ২শ’ টাকা দিতে চেয়েছেন। পরে চামড়াগুলো তার কাছে বিক্রি না করে মাদ্রাসায় দান করা হয়েছে।

সিবি/ এডিবি