NAVIGATION MENU

চুরি হওয়ার ৩ দিন পর মিললো নবজাতকের মরদেহ


বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে চুরি হওয়ার তিন দিন পর সোহানা নামের ১৭ দিন বয়সি নবজাতকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তিন দিন আগে বাবা-মায়ের কোল থেকে ঘুমন্ত অবস্থায় নবজাতকটি চুরি হয়।

বুধবার (১৮ নভেম্বর) সকালে শিশুটির দাদা আলী হোসেনের ঘরের সামনের পুকুর থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

নবজাতকের বাবা সুজন খান বলেন, আমার বাবা ফজরের নামাজ শেষে বাড়ি ফেরার পথে পুকুরে মরদেহ দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ আসার আগেই মরদেহ উদ্ধার করে স্বজনরা।

মোরেলগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মনিরুল ইসলাম বলেন, ‘খবর পেয়ে নবজাতকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহটি বাগেরহাট সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। যে পুকুরে মরদেহটি পাওয়া গেছে চুরি যাওয়ার পর ওই পুকুরেও তল্লাশি করা হয়েছিলো। সব বিষয় আমলে নিয়ে মূল রহস্য উৎঘটনের চেষ্টা করছি।’

মোরেলগঞ্জ উপজেলার গাবতলা গ্রামের সুজন খান ও শান্তা আক্তার দম্পতির সন্তান সোহানা রাতে বাবা-মায়ের সঙ্গে ঘুমিয়েছিল। গত রবিবার রাতের কোনো একসময় মা-বাবার মাঝ থেকে শিশুটিকে চুরি করে নিয়ে যায় দুবৃর্ত্তরা। পরে সোমবার রাতে অজ্ঞাতনামাদের আসামি করে থানায় মামলা করে শিশুটির দাদা আলী হোসেন খান।

সিবি/এডিবি