NAVIGATION MENU

মুক্তির অপেক্ষায় সৌমিত্রের নতুন সিনেমা


পশ্চিমবঙ্গের বাংলা সিনেমার কিংবদন্তি পুরুষ সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের ‘অবলম্বন’ নামের একটি সিনেমা আগামি ডিসেম্বরেই মুক্তি পেতে যাচ্ছে।

ভারতের বাংলা গণমাধ্যম জি নিউজ এ খবর জানিয়েছে।

রবিবার (১৫ নভেম্বর) বেলা সোয়া ১২টায় কলকাতার বেলভিউ হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়। গত ৬ অক্টোবর থেকে দীর্ঘ ৪০ দিন বেলভিউতে চিকিৎসাধীন ছিলেন প্রয়াত এই অভিনেতা।

সৌমিত্র করোনাভাইরাস আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার আগে বেশ কয়েকটি সিনেমার শ্যুটিং শেষ করেছিলেন। এরমধ্যে  ডাবিং শেষ করতে পেরেছিলেন ‘অবলম্বন’ সিনেমার।

সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় বেশ কিছু সিনেমায় কাজ করে গেছেন, যেগুলো মুক্তি পায়নি এখনো। এক এক করে সেগুলো আসবে সিনেমা হলসহ নানা প্লাটফর্মে।

‘অবলম্বন’ সিনেমাটি পরিচালনা করেছেন নাড়ু গোপাল মণ্ডল। এখানে একজন লেখকের ভূমিকায় অভিনয় করেছেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়। এর কাহিনী গড়ে উঠেছে একটি উপন্যাস লেখাকে কেন্দ্র করে। যেখানে উপন্যাসটি লেখার পর লেখক হঠাৎ আবিষ্কার করেন যে, এর চরিত্রগুলো তার খুব চেনা। সব চরিত্র তার মনের অজান্তেই নিজের জীবনের চেনা-জানা মানুষ হয়ে উঠছে। এ বিষয়টি লেখকে আনন্দ দেয়, বেদনাও দেয়।

এদিকে সৌমিত্রের বায়োপিক নির্মাণ করছিলেন অভিনেতা পরমব্রত চট্টোপাধ্যায়। ‘অভিযান’ নামের সেই সিনেমার শুটিং পুরোপুরি শেষ করে যেতে পারেননি তিনি।

প্রায় সাত দশকেরও বেশি সময় ধরে সিনেমা জগত দাপিয়ে বেড়িয়েছেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়। অভিনেতার রুপালি সফর শুরু হয় ১৯৫৯ সালে। ছবির নাম অপুর সংসার, যা পরিচালনার দায়িত্বে ছিলেন বিশ্ববরেণ্য চলচ্চিত্র পরিচালক সত্যজিৎ রায়। সেই পথচলা শুরু এই জুটির। সত্যজিৎ রায় পরিচালিত ৩৪টি ছবির ১৪টি ছবিতে অভিনয় করেছেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়, যা বিরল প্রাপ্তি।

সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের ৬১ বছর দীর্ঘ ফিল্মি ক্যারিয়ারে প্রায় ২৫০টি ছবিতে অভিনয় করেছেন।

নাট্যশিল্পী হিসেবেও তাঁর দেশজোড়া কদর। তাঁর কর্মজীবন শুরু আকাশবাণীতে, ঘোষক হিসেবে। তাঁর আবৃত্তি মন ভরিয়েছে আপামর বাঙালির। আবৃত্তির পাশাপাশি কবিতা রচনাও করেছেন তিনি। করেছেন পত্রিকা সম্পাদনার কাজ।

 ২৫০টির বেশি ছবিতে সুচিত্রা সেন, শর্মিলা ঠাকুর, অপর্ণা সেন, সাবিত্রী চট্টোপাধ্যায়, মাধবী মুখোপাধ্যায়, লিলি চক্রবর্তী, স্বাতীলেখা সেনগুপ্ত, মমতাশংকর থেকে গার্গী রায়চৌধুরির মতো প্রচুর নায়িকার নায়ক তিনি।

১৯৩৫ সালে কৃষ্ণনগরে জন্মগ্রহণ করেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়। বাবা মোহিত কুমার চট্টোপাধ্যায় কলকাতা হাইকোর্টের উকিল ছিলেন। তবে নাটকের চর্চা নিয়মিত ছিলো পরিবারে। বাবা নাটকের দলে অভিনয় করতেন। ছোট থেকেই সেই পরিবেশে বড় হওয়া তাঁর। তখন থেকেই অভিনয়ের প্রেমে পড়ে যান সৌমিত্র। কলকাতার সিটি কলেজ থেকে প্রথমে আইএসসি এবং পরে বিএ অনার্স (বাংলা) পাস করার পর পোস্ট গ্র্যাজুয়েট কলেজ অফ আর্টস-এ দুবছর পড়াশোনা করেছিলেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়।

ওয়াই এ/এডিবি