NAVIGATION MENU

শুভেচ্ছায় সিক্ত হচ্ছেন জো বাইডেন ও কমলা হ্যারিস


যুক্তরাষ্ট্রের ৪৬তম প্রেসিডেন্ট হিসেবে ক্ষমতায় বসতে যাওয়া জো বাইডেন ঐতিহ্যগত পশ্চিমা মিত্র দেশগুলোসহ বিশ্বনেতাদের শুভেচ্ছায় শিক্ত হচ্ছেন।

ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন শনিবার (৭ নভেম্বর) এক বিবৃতিতে বলেছেন, যুক্তরাজ্যের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ মিত্র যুক্তরাষ্ট্র। জলবায়ু পরিবর্তন থেকে শুরু করে বাণিজ্য ও নিরাপত্তার মতো অভিন্ন অগ্রাধিকারের বিষয়গুলো নিয়ে নিবিড়ভাবে একসাথে কাজ করতে তিনি অপেক্ষায় আছেন।

তিনি প্রথম নারী, প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ নারী ও প্রথম দক্ষিণ এশিয়ান বংশোদ্ভূত হিসেবে ঐতিহাসিক অর্জনের জন্য ভাইস-প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত কমলা হ্যারিসকেও অভিনন্দন জানিয়েছেন।

ফরাসি প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল মাক্রোঁ ট্যুইট করে জানিয়েছেন, ‘আজকের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় আমাদের অনেক কিছু করতে হবে। চলুন একসাথে কাজ করি।’

কানাডিয়ান প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো বলেছেন, বিশ্বের বড় চ্যালেঞ্জগুলো রোধে একসাথে কাজ করতে তিনি আগ্রহ নিয়ে বসে আছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের ৩৯তম প্রেসিডেন্ট জিমি কার্টার বলেছেন, তিনি ও তার স্ত্রী ডেমোক্র্যাটদের দক্ষ নির্বাচনী প্রচারণা এবং তারা দেশে যে ইতিবাচক পরিবর্তন এনেছে তা দেখে তিনি গর্বিত।

যুক্তরাষ্ট্রের ৪২তম প্রেসিডেন্ট বিল ক্লিনটন এক ট্যুইটে বলেছেন, ‘আমেরিকা কথা বলেছে এবং গণতন্ত্রের জয় হয়েছে।’

সাবেক এই প্রেসিডেন্টের  আশা, বাইডেন ও হ্যারিস সবার জন্য কাজ করবেন এবং সবাইকে একতাবদ্ধ রাখবেন।

সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা বলেছেন, নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ও ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিসকে অভিনন্দন জানানোর চেয়ে তার কাছে আর কিছু অধিক গর্বের নেই।

তিনি জানান, বাইডেন এমন কিছু বিস্ময়কর চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করে হোয়াইট হাউজে ঢুকবে যা আর কোনো নতুন প্রেসিডেন্টকে মুখোমুখি হতে হয়নি।

ওবামার দুই মেয়াদকালে ভাইস-প্রেসিডেন্টের দায়িত্বে ছিলেন বাইডেন।

সিবি/এডিবি