NAVIGATION MENU

টেলিভিশনে সংবাদ শিরোনামে বিজ্ঞাপন প্রচারে নিষেধাজ্ঞা স্থগিত


টেলিভিশনের সংবাদ প্রচারের সময় সংবাদ শিরোনামে বিজ্ঞাপন প্রচারে নিষেধাজ্ঞা স্থগিত করেছেন হাইকোর্টের আপিল বিভাগ। এই আদেশের ফলে মামলা নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত খবরের স্পন্সর বিজ্ঞাপন প্রচারে বাধা থাকলো না।

রবিবার (১৮ অক্টোবর) প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন আপিল বিভাগ এই আদেশ দেন।

আদালতে রিটের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন ব্যারিস্টার মাসুদ আহমেদ সাঈদ। অন্যদিকে বিটিআরসির পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার খোন্দকার রেজা-ই রাকিব।

এর আগে ২০১৯ সালের ৬ মে দেশের সকল বেসরকারি টেলিভিশনে সংবাদ প্রচারের বিভিন্ন অংশে কোনও ধরনের বাণিজ্যিক স্পন্সরের বিজ্ঞাপন প্রচারের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছিলেন হাইকোর্ট। 

ওই বছরের ১ সেপ্টেম্বর থেকে বেসরকারি সকল টিভি চ্যানেলকে এই রায় মেনে চলতে নির্দেশ দিয়েছিলেন আদালত। এ সংক্রান্ত এক রিট আবেদনের চূড়ান্ত শুনানি নিয়ে বিচারপতি জুবায়ের রহমান চৌধুরী ও বিচারপতি শশাংক শেখর সরকারের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ এ রায় দেন।

বিটিআরসির আইনজীবী খন্দকার রেজা ই রাকিব বলেছেন, 'বিজ্ঞাপন বন্ধ চেয়ে মামলা করার এখতিয়ারই ছিল না রিটকারীর। একটি হাইপোথিটিক্যাল ইস্যুর উপরে নির্ভর করে এই বিচার হয়েছিলো।' 

অ্যার্টনি জেনারেল অ্যাডভোকেট এ এম আমিন উদ্দিন বলেন, 'বিজ্ঞাপন বন্ধ হলে অনেক বেসরকারি টিভি চ্যানেলের সম্প্রচার বন্ধ হয়ে যাবে।'

এর আগে সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে বিজ্ঞাপন নিলে সেই প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে করা সংবাদের নিরপেক্ষতা প্রশ্নবিদ্ধ হয় জানিয়ে ২০১১ সালে হাইকোর্টে এ রিট দায়ের করেন এম এ মতিন নামের এক স্কুলশিক্ষক। রিটকারীর মৃত্যুর পর ফারুক মো. হাসিব নামের একজন ব্যবসায়ী ওই রিটে পক্ষভুক্ত হয়ে মামলার কার্যক্রম চলমান রাখেন।

পরে ওই রিটের ওপর রুল জারি করেন হাইকোর্ট। রিটে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সচিব, আইন মন্ত্রণালয় সচিব, বাংলাদেশ টেলিভিশন ও বেসরকারি সকল টেলিভিশনসহ মোট ২৪ জনকে বিবাদী করা হয়।

এডিবি/